ব্রিটেনে করোনার টিকা দেয়া শুরু হয়েছে

প্রকাশিত: ২:১৭ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ৮, ২০২০


সু:ডাক:ডেস্ক:  যুক্তরাজ্যে করোনার টিকাদান কর্মসূচি গতকাল থেকে শুরু হয়েছে । এরআগে বুধবার ফাইজারের টিকা অনুমোদন দেয় দেশটি। প্রাথমিকভাবে স্বাস্থ্যকর্মী, বয়স্ক লোকজন ও কেয়ারহোমের কর্মীরা এই টিকা পাবেন। ব্রিটেনের স্বাস্থ্য বিভাগ জানায়, ঝুঁকিপূর্ণ এসব ব্যক্তিকে টিকা দেয়ার এ দায়িত্ব পালন করবে ন্যাশনাল হেলথ সার্ভিস (এনএইচএস)। এদিকে ফাইজারের করোনার টিকা সংরক্ষণের জন্য মাইনাস ৭০ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রার ফ্রিজ তৈরি করছে ব্রিটেন। ভারতে অক্সফোর্ডের টিকার অনুমোদন চেয়েছে সেরাম ইন্সটিটিউট। ইন্দোনেশিয়ায় পৌঁছেছে চীনা কোম্পানি সিনোভ্যাকের করোনা টিকার প্রথম চালান।
যুক্তরাজ্যের স্বাস্থ্যমন্ত্রী ম্যাট হ্যানকক করোনার টিকা প্রদানের কার্যক্রম শুরুকে একটি ‘ঐতিহাসিক মুহূর্ত’ হিসেবে বর্ণনা করেছেন। পাশাপাশি করোনাভাইরাস রুখতে প্রত্যেককে নিজ নিজ অবস্থান থেকে ভূমিকা রাখার আহ্বান জানিয়েছেন তিনি।
বিবিসির এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, প্রাথমিকভাবে করোনার সঙ্গে যুদ্ধ করে টিকে থাকা স্বাস্থ্যকর্মী, ৮০ বছরের বেশি বয়স্ক লোকজন ও কেয়ারহোমের কর্মীরা করোনার টিকা পাবেন। ইংল্যান্ডে করোনার টিকা দেয়ার স্থান হিসেবে ৫০টি হাসপাতাল নির্ধারণ করা হয়েছে। এছাড়া স্কটল্যান্ড, ওয়েলস ও নর্দান আয়ারল্যান্ডেও মঙ্গলবার থেকে টিকা দেয়ার কাজ শুরু হবে। এসব জায়গাতেও হাসপাতাল থেকে টিকা দেয়া হবে বলে জানানো হয়েছে।
মার্কিন কোম্পানি ফাইজার ও জার্মানির বায়োএনটেকের উদ্ভাবিত এ টিকার বিশেষ কন্টেইনার বেলজিয়াম থেকে যুক্তরাজ্যে পাঠানো হয়েছে। পরে সেগুলো গোপন একটি সুরক্ষিত স্থানে রাখা হয়। সেখান থেকে যেসব হাসপাতালে টিকা দেয়া হবে সেসব হাসপাতালে পাঠানো হয়। এনএইচএসের ন্যাশনাল মেডিকেল ডিরেক্টর অধ্যাপক স্টিফেন পাওস বলেন, অনেক জটিলতা সত্ত্বে করোনার টিকার প্রথম ডোজ সোমবার হাসপাতালগুলোতে পৌঁছেছে। মঙ্গলবার (আজ) টিকা দেয়া শুরু হবে। যুক্তরাজ্যের রানী দ্বিতীয় এলিজাবেথও (৯৪) কয়েক সপ্তাহের মধ্যে এ টিকা নেবেন।
এর আগে ২ ডিসেম্বর বিশ্বের প্রথম দেশ হিসেবে যুক্তরাজ্য ফাইজার-বায়োএনটেকের টিকা ব্যবহারের অনুমোদন দেয়। পরে টিকাটির জরুরি অনুমোদন দেয় বাহরাইন।
মাইনাস ৭০ ডিগ্রির ফ্রিজ তৈরি করছে যুক্তরাজ্য : ফাইজারের টিকাটি পরিবহন ও মজুদের ক্ষেত্রে অবশ্যই মাইনাস ৭০ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা বজায় রাখতে হবে। বিশ্বের সেরা হাসপাতালগুলোতেও এই তাপমাত্রায় টিকা সংরক্ষণের কোনো ব্যবস্থা নেই। তাই টিকার নিরাপদ সংরক্ষণের জন্য নতুন করে রেফ্রিজারেটর উৎপাদন করছে যুক্তরাজ্য।
ভারতে টিকার জরুরি অনুমোদন চায় সেরাম : ভারতে ফাইজারের পর এবার অক্সফোর্ডের টিকার জরুরি প্রয়োগের অনুমোদন চেয়েছে সেরাম ইন্সটিটিউট। সোমবার এনডিটিভি খবরে বলা হয়, অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয় ও অ্যাস্ট্রাজেনেকার করোনার টিকা প্রকল্পের অন্যতম অংশীদার সেরাম ইন্সটিটিউট। ভারতে এই টিকার ওপর ট্রায়াল চালাচ্ছে তারা। ভারতের ওষুধ নিয়ন্ত্রক সংস্থা ডিসিজিআইয়ের কাছে করা আবেদনে সেরাম ইন্সটিটিউট বলেছে, কোভশিল্ড নামের এই টিকা নিরাপদ। টিকাটি খুবই সহনীয়।
চীনা টিকার প্রথম চালান পেল ইন্দোনেশিয়া : চীনা কোম্পানি সিনোভ্যাকের করোনা টিকার প্রথম চালান পেয়েছে ইন্দোনেশিয়া। রোববার দেশটির প্রেসিডেন্ট জোকো উইদোদো টিকা পাওয়ার কথা নিশ্চিত করেছেন। অনলাইন ব্রিফিংয়ে উইদোদো জানান, চীনা কোম্পানি সিনোভ্যাক বায়োটেক লিমিটেডের উদ্ভাবিত কোভিড-১৯ এর টিকার ১২ লাখ ডোজ তারা গ্রহণ করেছেন।

এই সংবাদটি 105 বার পঠিত হয়েছে