সারা দেশে টিসিবির পণ্য বিক্রি চালু হলেও সুনামগঞ্জ শহরে নেই

প্রকাশিত: ৫:০৭ অপরাহ্ণ, জুন ৬, ২০২১

ষ্টাফ রিপোর্টার:
গতকাল বোরবার থেকে সরকারী ঘোষনা মোতাবেক সারা দেশে টিসিবির পণ্য বিক্রি শুরু হলে ও সুনামগঞ্জ শহরের কোথাও টিসিবির পণ্য বিক্রি করতে দেখা যায়নি। গত ২৪ ঘন্টায় শহরের ট্রাফিক পয়েন্ট, কাজীর পয়েন্ট, কোর্ট পয়েন্ট, সহ বিভিন্ন পয়েন্ট পর্যবেক্ষন করে ও কোথা ও টিসিবি’র পন্যবাহী ট্রাক কিংবা গাড়ি দেখা যায়নি। উল্লেখ্য যে, চলমান করোনা পরিস্থিতিতে সাশ্রয়ী মূল্যে সারা দেশে তিনটি পণ্য বিক্রি শুরু করেছে ট্রেডিং করপোরেশন অব বাংলাদেশ (টিসিবি)। এব্যপারে জানতে চাইলে টিসিবির আঞ্চলিক কার্য নির্বাহি ইসমাঈল মজুমদার বলেন, “সুনামগঞ্জে মেহেদী এন্টার প্রাইজ নামক প্রতিষ্টানকে পণ্য বিক্রির জন্য দায়িত্ব দেয়া হয়েছে, তারা বিক্রি করছে কিনা তা তারাই বলতে পারবে”। মেহেদী এন্টারপ্রাইজের এনামুল হাসান এ প্রতিবেদকের নিকট রবিবার বিকেল ৫টা থেকে সন্ধা ৭টাপর্যন্ত শহরের জুবিলী স্কুলের সামনে ১২১০ কেজি পণ্য বিক্রির দাবী করলে ও বাস্তবে ঐ সময়ে কোন প্রকার টিসিবি’র মাল বিক্রি করতে কেহ দেখেননি। এব্যপারে জানতে চাইলে সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার ইমরান শাহরিয়ার বলেন, “ঈদের পুর্বে টিসিবি’র পণ্য বিক্রির চিটি পেলে ও আজ বিতরনের কোন চিটি আমি পাইনি”। তিনি এব্যাপারে সহ:কমিশনার (ভুমি)’র সাথে যোগাযোগ করতে বলেন।
জানা গেছে, ভ্রাম্যমাণ ট্রাকে চিনির পাশাপাশি মশুর ডাল ও সয়াবিন তেল বিক্রি করছে টিসিবি। প্রতিকেজি চিনি পাওয়া যাচ্ছে ৫৫ টাকায়, যা একজন ক্রেতা সর্বোচ্চ চার কেজি কিনতে পারছেন। এছাড়া প্রতিকেজি মশুর পাওয়া যাবে ৫৫ টাকায়, যা একজন ক্রেতা সর্বোচ্চ দুই কেজি কিনতে পারবেন। সয়াবিন তেল ১০০ টাকা লিটারে একজন ক্রেতা দুই থেকে সর্বোচ্চ পাঁচ লিটার নিতে পারবেন।
সারা দেশে ৪০০ জন ডিলারের ভ্রাম্যমাণ ট্রাকে এ বিক্রয় কার্যক্রম চলছে। এর মধ্যে ঢাকায় ৮০টি ও চট্টগ্রাম সিটিতে ২০টি ট্রাকে এ পণ্য বিক্রি করা হচ্ছে।
টিসিবি সূত্র জানিয়েছে, প্রতিটি ট্রাকে প্রতিদিন ৬০০ থেকে ৮০০ কেজি চিনি, ৩০০ থেকে ৬০০ কেজি ডাল ও ৮০০ থেকে ১ হাজার ২০০ লিটার সয়াবিন তেল বিক্রি করা হবে। দেশব্যাপী ৪০০ ট্রাকে আগামী ১৭ জুন পর্যন্ত চলবে এ কার্যক্রম। টিসিবি’র পণ্য কালো বাজারে বিক্রির অভিযোগ দীর্ঘ দিনের। সঠিক তদারকির অভাবের কারনে ঠিকাদাররা টিসিবি’র পণ্য কালো বাজারে বিক্রি করে দিচ্ছেন মর্মে অভিযোগ উঠেছে, এব্যাপারে জেলা প্রশাসকের হস্তক্ষেপ কামরনা করছেন ভুক্তভুগীরা।

এই সংবাদটি 52 বার পঠিত হয়েছে

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ